» করোনার নতুন ধরণ তরুণদের তীব্রভাবে আক্রমণে সক্ষম

প্রকাশিত: ২৪. ডিসেম্বর. ২০২০ | বৃহস্পতিবার

চেম্বার ডেস্ক:: দক্ষিণ আফ্রিকায় শনাক্ত হওয়া করোনাভাইরাসের নতুন দুটি ধরণ অনেক বেশি সংক্রামক এবং এগুলো তরুণদের তীব্রভাবে আক্রমণে সক্ষম। শুধু তাই নয়, সম্ভবত এগুলো কিছুটা টিকা প্রতিরোধকও। দক্ষিণ আফ্রিকার বিজ্ঞানীরা এ তথ্য জানিয়েছেন।

 

বৃহস্পতিবার দ্য গার্ডিয়ান জানিয়েছে, গবেষকরা অবশ্য এখনও নতুন এই দুটি ধরণে কতটুকু হুমকি তা জানতে কাজ করছেন। প্রাথমিকভাবে করোনার এই দুটি ধরণে আক্রান্তদের মধ্যে তীব্র লক্ষণ কিংবা ভিন্ন চিকিৎসার প্রয়োজনীয়তা দেখা দেয়নি।

 

দক্ষিণ আফ্রিকায় পাওয়া করোনার নতুন দুটি রূপে আরও বেশি মিউটেশন ঘটে থাকতে পারে। এগুলো হয়তো করোনার সংক্রমণ থেকে সুস্থ হওয়া ব্যক্তিদের পুনরায় আক্রমণ করতে পারে।

 

করোনার নতুন দুটি রূপ নিয়ে যারা গবেষণা করছেন তাদের অন্যতম ড. রিচার্ড লিসিলস বলেন, ‘এই ধরণটি সম্পর্কে যুক্তরাজ্যে পাওয়া আমাদের সব তথ্য একত্রিত করে দেখা যাচ্ছে, এটি এক ব্যক্তি থেকে আরেক ব্যক্তির মধ্যে অনেক দ্রুত সংক্রমণ ঘটাতে পারে এবং এটি ভালো নয়। এর মানে হচ্ছে একে থামাতে আরো ভালো কাজ করতে হতে হবে।

 

তিনি বলেন, ‘টিকা নিয়ে আমাদের বেশ কিছুটা উদ্বেগ রয়েছে…আরেকটি উদ্বেগ পুনরায় সংক্রমণ নিয়ে। আমাদের যে প্রশ্নগুলো রয়েছে তার উত্তর পেতে আমরা গবেষণাগারে পদ্ধতিগত কাজ করছি যেটি কিছুটা সময় নিচ্ছে।’

 

গত সপ্তাহে যুক্তরাজ্যে করোনার নতুন একটি রূপ শনাক্ত হয়। পরে জানা যায়, দক্ষিণ আফ্রিকায় এর মিউটেশন ঘটেছে। বুধবার ব্রিটিশ স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরও একটি নতুন রূপ শনাক্তের কথা জানিয়েছেন। এটির মিউটেশনও দক্ষিণ আফ্রিকায় ঘটেছে।

[hupso]

সর্বশেষ