সর্বশেষ

» এআইবিডি-এইচসিএম টাস্কফোর্সে বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করছেন সিলেটের আবু সাদেক

প্রকাশিত: ০৩. এপ্রিল. ২০২১ | শনিবার

চেম্বার ডেস্ক:: এশিয়া-প্যাসিফিক ইন্সটিটিউট ফর ব্রডকাস্টিং ডেভেলাপমেন্ট-এআইবিডি এর
গণমাধ্যমকর্মীদের জন্য স্বাস্থ্য যোগাযোগ নির্দেশিকা-(এইচসিএম) প্রণয়নে গঠিত টাস্কফোর্সে, বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করছেন জাতীয় গণমাধ্যম ইনস্টিটিউটের উপ-পরিচালক মোহাম্মদ আবু সাদেক। কার্যক্রমের অংশ হিসেবে তিনি গত ২৪ মার্চ মাসব্যাপি স্বাস্থ্য-সাংবাদিকদের জন্য, স্বাস্থ্য-যোগাযোগ বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালার ই-সমাপনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে সার্বিক কার্যক্রম পর্যালোচনা করেন।
গণমাধ্যমকর্মীদের জন্য স্বাস্থ্য যোগাযোগ নির্দেশিকা প্রণয়ন, একটি বছর-ব্যাপি কার্যক্রম। শ্রোতা-দর্শক-পাঠকের নিকট নির্ভরযোগ্য সূত্র থেকে স্বাস্থ্য বিষয়ক সঠিক বার্তা, পেশাগত দক্ষতার সাথে উপস্থাপনে, স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ ও গণমাধ্যম কর্মীদের মধ্যে যোগসূত্র স্থাপন করবে এআইবিডি-এইচসিএম।

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের ১২ জন টাস্কফোর্স সদস্য স্বাস্থ্য যোগাযোগ নির্দেশিকা প্রণয়ন এবং এ সংক্রান্ত সকল প্রশিক্ষণ, গবেষণা ইত্যাদি বিষয় তদারকি করেন। তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের যথাযথ অনুমোদনক্রমে ও মহাপরিচালক শাহিন ইসলাম এর দক্ষ নেতৃত্বে, জাতীয় গণমাধ্যম ইনস্টিটিউট, এআইবিডি এর সক্রিয় সদস্য হিসেবে নির্দেশিকা প্রণয়নে যুক্ত হয়েছে এবং এআইবিডি কর্তৃক গঠিত এইচসিএম টাস্কফোর্সে বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্ব করছে। টাস্কফোর্সে ভারত, ভুটান, মালয়েশিয়া, কোরিয়া, ইন্দোনেশিয়া, নাইজেরিয়া,
আমেরিকা ও ফিজির ১২জন সদস্য রয়েছেন।

আবু সাদেক ইতোপূর্বে কানাইঘাট কলেজ ও সিলেটের নয়াসড়কস্থ খাজাঞ্জিবাড়ী ইন্টারন্যাশনাল স্কুলের শিক্ষক ছিলেন। এছাড়া তিনি শীর্ষস্থানীয় সফটওয়্যার নিমার্তা প্রতিষ্ঠান টেকনোভিস্তা লিমিটেড এ, সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার হিসাবে কর্মরত ছিলেন। তিনি স্নাতকোত্তর পর্যায়ে প্রথম শ্রেণীতে ৬ষ্ঠ স্থান লাভ করেন।

বাংলাদেশের প্রতিনিধিত্বকারী মোহাম্মদ আবু সাদেকের স্থায়ী নিবাস সিলেট জেলার কানাইঘাট থানার সাতবাক ইউনিয়নের জুলাই গ্রামে। তিনি এমসি কলেজের প্রাক্তন শিক্ষক (১৯৭০-১৯৮৩) মরহুম মোহাম্মদ আবু সালেহের পুত্র ও কানাইঘাট হাইস্কুলের দীর্ঘদিনের কর্ণধার (১৯৪৩-১৯৭১) শিক্ষাবিদ ‘হেডমাস্টার মৌলভী ইব্রাহিম আলী’ এর নাতি।

উল্লেখ্য ‘এআইবিডি’ এশিয়া প্যাসিফিক অঞ্চলের আন্ত:সরকার এবং ইউএন-এসকাপ সদস্য দেশসমুহের গণমাধ্যম উন্নয়ন সংস্থা  হিসাবে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে আসছে। বিশ্বের ৪৬টি দেশের ৯৩টি গণমাধ্যম সংস্থা ‘এআইবিডি’ এর সদস্য এবং এশিয়া, ইউরোপ, আফ্রিকা ও উত্তর আমেরিকার ৫০টিরও বেশি অংশিদার প্রতিষ্ঠান রয়েছে। জাতীয় গণমাধ্যম ইনস্টিটিউট ১৯৮০ সাল থেকে ‘এআইবিডি’ এর সদস্য। এছাড়া বাংলাদেশ টেলিভিশন ও বাংলাদেশ বেতার মালয়েশিয়া ভিত্তিক এ সংস্থার সদস্য।

[hupso]

সর্বশেষ

আর্কাইভ

April 2021
M T W T F S S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
2627282930