» ২০ টাকার জন্য অটোরিকশা চালককে খুন

প্রকাশিত: ৩০. ডিসেম্বর. ২০২০ | বুধবার

চেম্বার ডেস্ক:: নোয়াখালীর চাটখিল উপজেলার রামনারায়ণপুর ইউনিয়নের ধর্মপুর গ্রামে চালককে হত্যা করে অটোরিকশা ছিনতাই মামলার একমাত্র আসামি মাহবুবকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে চাটখিল থানা পুলিশ মাহবুবকে নোয়াখালীর কবিরহাট উপজেলার ভূইয়ার হাঁট এলাকা থেকে গ্রেফতার করেছে।

চাটখিল থানার ওসি আনোয়ারুল ইসলাম যুগান্তর প্রতিনিধিকে জানান, চাটখিল উপজেলা গেইট থেকে মাহবুব বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় অটোরিকশাটি ভাড়া করে প্রথমে নাজির কাচারি বাজারে নিয়ে যায়। সেখান থেকে তাকে ৮০ টাকার স্থলে ১০০ টাকা দিবে বলে ছোবহানপুর বাজারে নেয়ার জন্য বলে। কিন্তু রিকশা ড্রাইভার নুর আমিন বলে তাকে ১২০ টাকা দিতে হবে।

এ নিয়ে দু’জনের মধ্যে তর্কাতর্কির ঘটনা ঘটে। এক পর্যায়ে ধর্মপুরে নির্জন স্থানে গেলে মাহবুব রিকশাচালক নুর আমিনকে রিকশা থেকে নামিয়ে উপর্যুপরি ঘুষি মারতে থাকে। এতে নুর আমিন মাটিতে লুটিয়ে পড়েন।

এ সময় মাহবুব তাকে সুপারি গাছের সঙ্গে গামছা দিয়ে বেঁধে রেখে মৃত্যু নিশ্চিত করে। এরপর মাহবুব অটোরিকশাটি নিজেই চালিয়ে চন্দ্রগঞ্জ দিয়ে নোয়াখালীর কবিরহাটে চলে যায়।

পুলিশ মাহবুবের স্বীকারোক্তি মোতাবেক অটোরিকশাটি ভূইয়ার হাট থেকে উদ্ধার করে। মঙ্গলবার সকালে মাহবুবকে আদালতে হাজির করলে মাহবুব ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তি মূলক জবানবন্দি প্রদান করেন।

নিহত নুর আমিন চাটখিল পৌরসভার ছয়ানী টবগা গ্রামের বাসিন্দা। পুলিশ জানায় মাহবুবের বিরুদ্ধে চাটখিল থানায় গরু চুরিসহ একাধিক মামলা রয়েছে। মাহবুব দীর্ঘ দিন থেকে ফেনিতে বসবাস করে আসছে। ভূইয়ার হাটে তার এক বন্ধুর বাসায় সে মাঝে মাঝে আসা যাওয়া করতো।

[hupso]

সর্বশেষ